প্রধানমন্ত্রীর দাড়ি নাকি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের মতো হয়ে যাচ্ছে! আমজনতার চর্চায় এই প্রসঙ্গ থাকলেও রবিবার সন্ধ্যায় স্পিকারের চা-চক্রে খোদ নরেন্দ্র মোদীকেই শুনিয়ে দিয়েছেন তৃণমূলের লোকসভার নেতা সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায় এ কথা।

রবিবার সন্ধ্যায় স্পিকারের ডাকা সর্বদলের লোকসভার নেতাদের বৈঠক। বৈঠকের পরে চা-চক্র সংসদের অ্যানেক্স ভবনে ছিল। মোদীর উল্টো দিকেই স্পিকার বসেন।

স্পিকারের দু’পাশে ছিলেন সুদীপ এবং কংগ্রেসের লোকসভার নেতা অধীর চৌধুরী। সূত্রের খবর, সুদীপ, অধীরের সঙ্গে মোদী প্রথমেই কুশল বিনিময় করেন। তখনই সুদীপ দাড়ির সূত্রে উল্লেখ করেন তাঁর ও রবীন্দ্রনাথের মিলের। জবাবে নিরুচ্চার হাসতে দেখা যায় মোদীকে।

চায়ের টেবিলে হাল্কা গল্পগুজবও হয় তাঁদের। রাজনৈতিক সূত্রে সে সবের কিছু কাহিনি বাইরে এসেছে। যেমন, একটা সময়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন তাঁদের বাংলার নানা মিষ্টি যে বিখ্যাত, তা তিনি জানেন। কিন্তু সেখানে জিভে জল-আনা নোনতা খাবার কী পাওয়া যায়, তা বিশেষ জানেন না তিনি। তবে তাঁর জানার আগ্রহ রয়েছে।

বাংলার একেবারে নিজস্ব ও জনপ্রিয় নোনতা খাবার আলুর চপ সম্পর্কে সবিস্তারে অবহিত করেন অধীর প্রধানমন্ত্রীকে। মোদীও অধীর আগ্রহে তা শোনেন।